Girl in a jacket

ময়মনসিংহে স্ত্রী হত্যার অভিযোগ : স্বামী পলাতক

0

মো.জাকির হোসেন, ময়মনসিংহ প্রতিনিধি
ময়মনসিংহে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে তার স্বামীর বিরুদ্ধে। এ ঘটনার পর থেকেই স্বামী ফুয়াদ হোসেন পলাতক রয়েছেন। নিহত গৃহবধূর নাম মোনা (২৫)। ময়মনসিংহ নগরীর গোয়াইলকান্দি জামতলা দরগাহ জামে মসজিদ সংলগ্ন স্বামী ফোয়াদের বাসায় শুক্রবার (২৭ নভেম্বর) রাতে ওই গৃহবধূর হত্যাকান্ডটি ঘটে।
শনিবার সকালে কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফিরোজ তালুকদার  স্থানীয়দের বরাত দিয়ে জানান, বিয়ের পর থেকেই তাদের মধ্যে বনিবনা হচ্ছিল না। এনিয়ে তাদের মধ‌্যে দাম্পত‌্য কলহ লেগেই থাকতো। ধারণা করা হচ্ছে, এরই জেরে ফুয়াদ তার স্ত্রী মুনাকে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর লাশ ঝুলিয়ে রাখতে পারে। পরে মোনাকে হাসপাতালে রেখে ফুয়াদসহ তার শ্বশুর বাড়ির লোকজন পালিয়ে যায়। তাদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিক‌্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোট হতে পেলে বিস্তারিত বলা যাবে। 
জানা যায়, ২০১৪ সালে জামতলা মোড়ের নাসিম হোসেনের ছেলে ফুয়াদ হোসেনের সঙ্গে একই এলাকার মৃত আব্দুল জলিলের মেয়ে মুয়মুন মুনার বিয়ে হয়। তাদের চার বছর বয়সি একটি মেয়ে রয়েছে।
নিহতের মামা ফারুক হোসেন জানান, শুক্রবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে ফুয়াদ তাদেরকে মোবাইল ফোনে কল করে জানান যে, মোনা অসুস্থ তাকে হাসপাতালে নিতে হবে। পরে মোনাকে হাসপাতালে রেখে ফুয়াদ সটকে পড়েন।মামা  বলেন, ‘শ্বশুরবাড়ির লোকজন প্রায়ই যৌতুকের জন্য মোনাকে নির্যাতন  করতো। সংসার টিকানোর জন্য জায়গা বিক্রি করেও ফুয়াদকে টাকা দেওয়া হয়েছে। কিন্তু ফুয়াদ আমার ভাগনিকে মেরে গলায় রশি লাগিয়ে ঝুলিয়ে রাখবে তা ভাবনার বাইরে ছিল।

Share.

Comments are closed.